banglanewspaper

যে কোনো রোগে গুরুতর অসুস্থ্ এবং ১৮ বছরের কম বয়সী ব্যক্তিদের করোনার ভ্যাকসিন দেওয়া হবে না বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) সাংবাদিকদের সঙ্গে ব্রিফিংকালে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘প্রত্যেক উপজেলায় ৭ লাখ করে ভ্যাকসিন রাখার জন্য সব প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। টিকাদান কর্মসূচির জন্য আমরা সাড়ে ৭ হাজার টিম গঠন করেছি ইতোমধ্যে।’

আগামী ২৫ জানুয়ারির মধ্যে দেশে ভ্যাকসিন আসবে। আর সেই ভ্যাকসিন প্রয়োগের জন্য টেকনোলজিস্ট, নার্স, মিডওয়াইফ ও ভলান্টিয়ারসহ ৪২ হাজার কর্মীকে প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে বলে জনিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। 

জাহিদ মালেক বলেন, ভ্যাকসিন দেয়ার জন্য ৪২ হাজার কর্মীকে প্রশিক্ষণ দিচ্ছি। এর মধ্যে টেকনোলজিস্ট, নার্স, মিডওয়াইফ ও ভলান্টিয়ার আছে। ভ্যাকসিন যাতে সুন্দরভাবে দেয়া যায়, সেজন্য একটি অ্যাপস তৈরি করা হচ্ছে। আইসিট মন্ত্রণালয় এটি তৈরি করছে। আমরা তাদেরকে প্রয়োজনীয় সহযোগিতা করছি। অ্যাপসের মাধ্যমে ভ্যাকসিন প্রার্থী নিবন্ধন করতে পারবেন। 

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরও বলেন, আগামী ২৫/২৬ জানুয়ারির মধ্যে সেরামের মাধ্যমে ভ্যাকসিনের প্রথম লট আসার কথা। ভ্যাকসিন আসলে তা ট্রান্সপোর্ট ও স্টোরেজ করার ব্যবস্থা করেছি। 

তিনি আরও বলেন, আমরা কাদের ভ্যাকসিন দেব, তা আগেও বলেছি। যারা ফ্রন্টলাইনাররা যেমন— চিকিৎসক, নার্স, টেকনোলজিস্ট, সাংবাদিক, সেনাবাহিনী, পুলিশ, ট্রান্সপোর্ট ওয়ার্কাররা আগে পাবেন। আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি— ৫৫ থেকে বেশি বয়স্কদের পর্যায়ক্রমে ভ্যাকসিন দেয়ার চিন্তা ভাবনা করছি।

ট্যাগ: bdnewshour24