banglanewspaper

সাবেক স্বামীর করা অ্যাসিড হামলা ও হত্যাচেষ্টার মামলায় আত্মসমর্পণ করে জামিন পেয়েছেন সঙ্গীতশিল্পী তাশবিহা বিনতে শহীদ ওরফে মিলা।

বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) ঢাকার অ্যাসিড দমন ট্রাইব্যুনালের ভারপ্রাপ্ত বিচারক দিলারা আলো চন্দনা এ আদেশ দেন। 

এদিন মিলার পক্ষে জামিন শুনানি করেন আইনজীবী শাহিন আহমেদ। রাষ্ট্রপক্ষ থেকে জামিনের বিরোধিতা করা হয়। শুনানি শেষে বিচারক ১০ হাজার টাকার মুচলেকায় মিলার জামিন মঞ্জুর করেন।

গেল ১১ ফেব্রুয়ারি মিলার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত। পরদিন ১২ ফেব্রুয়ারি বিকেলে বিষয়টি নিশ্চিত করেন পল্লবী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী ওয়াজেদ আলী। 

ওইসময় তিনি জানান, সঙ্গীতশিল্পী মিলাকে ধরতে পুলিশের দুটি ইউনিট কাজ করছে। যদিও মিলার দাবি, তাকে পরিকল্পিতভাবে ফাঁসানো হয়েছে।

দুই বছর আগে মিলার বিরুদ্ধে অ্যাসিড হামলার অভিযোগে তার সাবেক স্বামী এস এম পারভেজ সানজারির বাবা এস এম নাসির উদ্দিন বাদী হয়ে মামলা করেন। সেই মামলায় আদালত তাকে গ্রেফতারের নির্দেশ দেন। 

ওসি বলেন, ‘গত ১০ ফেব্রুয়ারি এ মামলার গ্রেফতারি পরোয়ানা আদালত পল্লবী থানায় পাঠিয়েছেন। আমরা গতকাল (বৃহস্পতিবার) থেকেই মিলাকে গ্রেফতারের চেষ্টা করছি। তার বাসাসহ অনেক জায়গায় খোঁজ করা হচ্ছে। এখনও তাকে পাওয়া যাচ্ছে না। আমাদের দুটি ইউনিট সার্বক্ষনিক তাকে ধরতে কাজ করছে। যত দ্রুত সম্ভব আমরা তাকে গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করবো।’

মিলার সাবেক স্বামী পারভেজ সানজারি ২০১৯ সালের ২ জুন রাত ৮টার দিকে উত্তরার ৩ নম্বর সেক্টরে দুর্বৃত্তদের ছোড়া অ্যাসিডে দগ্ধ হন। এ ঘটনায় পারভেজের বাবা নাসির উদ্দিন উত্তরা পশ্চিম থানায় একটি মামলা করেন। সেই মামলায় মিলাকে সিআইডি জিজ্ঞাসাবাদ করেছিল। 

২০১৯ সালের ৩ সেপ্টেম্বর মিলার বিরুদ্ধে বিয়ের তথ্য গোপনের অভিযোগে মামলা করেন খোদ তার সাবেক স্বামী পারভেজ সানজারি। 

এর আগে ২০১৭ সালের ৫ অক্টোবর যৌতুক ও নির্যাতনের অভিযোগে সাবেক স্বামী পারভেজের বিরুদ্ধে মামলা করেন মিলা। সেই মামলায় গ্রেফতার হন সানজারি। পরে তিনি জামিনে ছাড়া পান। 

গেল বছরের ১১ জুলাই মিলা সানজারির বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালে মামলা করেন। 

গত বছরের ১১ জুলাই সানজারির বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালে আরও একটি মামলা করেন মিলা। 

এদিকে অ্যাসিড হামলার অভিযোগকে ‘মিথ্যা’ দাবি করে এর আগে মিলা গণমাধ্যমকে বলেছিলেন, ‘এ ঘটনায় কাজের ছেলে নিজের দোষ স্বীকার করেছে। সে নিজেই বলেছে, এতে আমি জড়িত না। এরপরও আমাকে বারবার ফাঁসানোর চেষ্টা করা হয়েছে।’

ট্যাগ: bdnewshour24