banglanewspaper

ঢাকাই চলচ্চিত্রের ইনোসেন্ট নায়িকা পূর্ণিমার কণ্ঠে এবার আরেফিন শুভকে নিয়ে আক্ষেপ ঝরে পড়লো। ১৯৯৭ সালে জাকির হোসেন রাজু পরিচালিত ‘এ জীবন তোমার আমার’ চলচ্চিত্রের মধ্য দিয়ে দিলারা হানিফ রীতা ওরফে পূর্ণিমার চলচ্চিত্রে অভিষেক ঘটে। এ পর্যন্ত তার অভিনীত প্রায় ৮০টি ছবি মুক্তি পেয়েছে। 

কিন্তু কোনও একটি ছবিতেও কি নায়ক হিসেবে আরেফিন শুভকে পাশে পেয়েছেন? কিংবা শুভর সঙ্গে বাঁধতে পেরেছেন কি জুটি? এ নিয়েই দেশের তারকা অভিনেত্রী, মডেল ও উপস্থাপিকা পূর্ণিমার যত আক্ষেপ।

অনেকদিন ধরেই বড় পর্দায় দেখা না মিললেও পূর্ণিমা অভিনীত নতুন দুটি ছবি ‘গাঙচিল’ ও ‘জ্যাম’ মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে।

নতুন ছবিগুলোর প্রসঙ্গে পূর্ণিমা বলেন, ‘‘গাঙচিল’ সিনেমার কাজ প্রায় শেষ। আর মাত্র ৫ দিনের মতো শুটিং করলে ছবিটির কাজ শেষ হয়ে যাবে। কিন্তু কেন যে ছবির কাজ শেষ করা হচ্ছে না, সেটিই আমি বুঝতেছি না। আদৌ শেষ করবে কিনা তাও জানিনা। ‘জ্যাম’ তো বন্ধই হয়ে গেলো। যতটুকু জেনেছি, ছবিটার কাজ আর হবে বলে মনে হয় না।’

বড় পর্দার এই নন্দিত নায়িকা বলেন, ‘প্রযোজকরা বাজেট বেড়ে যাওয়ায় ছবিটি শেষ করতে চাচ্ছেন না। আমার খুবই ব্যাড লাক! আরেফিন শুভর সঙ্গে এর আগে ‘ছায়াছবি’ নামে একটি সিনেমা করেছিলাম, সেই ছবি আজও মুক্তি পায়নি। এরপর দুজনে ‘জ্যাম’ ছবিতে জুটি বাঁধলাম। এখন এটাও নাকি আর হবে না।’

নায়িকার আক্ষেপ- ‘শুভর সঙ্গে এটা আমার বাজে একটা অভিজ্ঞতা। হয়তো ব্যাড লাক আমাদের দুজনের। ওর সঙ্গে আমার ‘সিনেমাভাগ্য’ খুবই খারাপ। যে কারণে এই জুটির কাজ হতে গিয়েও কেন যেন শেষ হয় না!  সে জায়গা থেকেই আগ্রহ হারিয়ে ফেলেছি। এরপর মনে হয় আর কেউ আমাদের একসঙ্গে চাইবেন বলেও মনে হয় না।’

ট্যাগ: bdnewshour24