banglanewspaper

ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ (ডব্লিউইউবি) এর স্থাপত্য বিভাগ "জলবায়ু পরিবর্তন, দুর্যোগ, নির্মাণ সামগ্রী, কৌশল এবং সংশ্লিষ্ট দিক বিবেচনায় বাংলাদেশের জন্য সাশ্রয়ী মূল্যের আবাসন” শীর্ষক ওয়েবিনার আয়োজন করে গত ১ সেপ্টেম্বর। ওয়েবিনারটিতে ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ আবু সাদেক অতিথি বক্তা হিসাবে অংশগ্রহণ করেন। ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ আবু সাদেক বর্তমানে সেন্টার ফর হাউজিং রিসার্চ এর নির্বাহী পরিচালক এবং বাংলাদেশ আর্থকোয়াক সোসাইটির সাধারণ সস্পাদক হিসাবে কাজ করছেন। দীর্ঘদিন তিনি হাউজিং অ্যান্ড বিল্ডিং রিসার্চ ইন্সটিটিউট এর সিইও সহ সরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে দায়িত্ব পালন করেন। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ (ডব্লিউইউবি) এর স্থাপত্য বিভাগের ভারপ্রাপ্ত প্রধান স্থপতি জিনাত ইসলাম। মোহাম্মদ আবু সাদেক তার ৪০ বছরের কর্ম-জীবনের অভিজ্ঞতা এবং গবেষনার আলোকে দুর্যোগপ্রবণ বাংলাদেশের নানা ধরনের দুর্যোগ এবং আবাসন ব্যবস্থা বিষয়ে সার্বিক আলোচনা করেন। ভৌগলিক অবস্থানগত কারণে বাংলাদেশ অনেক বেশি দুর্যোগ প্রবণ। সাইক্লোন, বন্যা, ভুমিকম্প সহ নানা রকম দুর্যোগের আঞ্চলিক প্রভাব, উপকূলীয় অঞ্চলের লবনাক্ততা এবং ভবনে এসবের প্রভাব তিনি তুলে ধরেন। তিনি তার উপস্থাপনায় দেখান বাংলাদেশের নির্মাণ সামগ্রী হিসাবে ব্যবহৃত বহুল প্রচলিত ইট, আলুমিনিয়ামের নেতিবাচক দিক এবং পরিবেশে তাদের কার্বন নিরসরণের পরিমাণ। সাস্টেইন্যেবল ডেভেলপমেন্ট গোল পূরণের লক্ষ্যে নানান রকম প্রস্তাবনার কথা উঠে আসে আলোচনায়। এক্ষেত্রে মাননীয় প্রথানমন্ত্রীর নির্দেশনার কথাও তিনি উল্লেখ্য করেন। পরিবেশ বান্ধব নির্মাণ সামগ্রী যেমন নদী খননের বালু থেকে তৈরী ব্লক, হলো ব্লক, ফেরো সিমেন্ট সহ বিকল্প নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহারের প্রতি জোড় দেন বক্তা। জলবায়ু পরিবর্তন সাথে দুর্যোগপ্রবণ হওয়ার জন্য বাংলাদেশের গ্রামীণ ও শহরের আবাসনের সাস্টেইনেবিলিটি নিশ্চিত করণ এবং বাংলাদেশের মানুষের আর্থ সামাজিক অবস্থানের ভিত্তিতে সাশ্রয়ী মূল্যের আবাসন গুরুত্ব পায় আলোচনায়। নির্মাণ সামগ্রী, নির্মাণ ব্যয় এবং একই সাথে টেঁকসইত্ব খুবই গুরুত্বপূর্ণ আমাদের দেশে সাশ্রয়ী মূল্যের আবাসন নিশ্চিতকরণে।

এখন সময় এসেছে জলবায়ু পরিবর্তন ও দুর্যোগের কথা মাথায় রেখে প্রচলিত নিয়মের বাইরে এসে প্রকৌশলী এবং স্থপতিদের ভিন্ন নির্মাণ সামগ্রীর ব্যবহার এবং নতুন পদ্ধতির প্রয়োগ করা বলে মন্তব্য করেন ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ আবু সাদেক ।

ট্যাগ: ভুমিকম্প