banglanewspaper

ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির গ্রাহক ও পণ্য সরবরাহকারীরা আগামীকাল শনিবার একটি সমন্বয় কমিটি গঠন করবে। সে কমিটি প্রতিষ্ঠানটির সিইও ও চেয়ারম্যানের মুক্তি এবং নিজেদের টাকা ফেরত পাওয়ার দাবিতে আন্দোলনের পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করবে।

শুক্রবার সন্ধ্যায় রাজধানীর ধানমন্ডির ইভ্যালির অফিসের সামনে গ্রাহক ও পণ্য সরবরাহকারীদের একটি অংশ এই সিদ্ধান্তের কথা জানায়।

এ সময় তারা জানান, ইভ্যালিকে রক্ষায় প্রতিষ্ঠাটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও চেয়ারম্যানের মুক্তি চান তারা। এ সংক্রান্ত আন্দোলনের নেতৃত্ব দিয়ে শনিবার বিকাল পাঁচটায় ইভ্যালির কার্যালয়ের সামনে প্রতিষ্ঠানিটির সব গ্রাহক এবং পণ্য সরবরাহকারীদের উপস্থিত থাকার অনুরোধ করা হয়েছে। সেখান থেকে একটি সমন্বয় কমিটি গঠন করা হবে এবং সেই কমিটি আন্দোলনের নেতৃত্ব দেবে জানিয়েছেন গ্রাহক ও পণ্য সরবরাহকারীরা।

এর আগে শুক্রবার বিকালে ইভ্যালির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ রাসেল ও তার স্ত্রী প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনের মুক্তির দাবিতে প্রতিষ্ঠানটির গ্রাহক এবং পণ্য সরবরাহকারীরা শাহবাগে জড়ো হন। বিকাল তিনটা থেকে শাহবাগ মোড়ে অবস্থান নিয়ে তারা বিক্ষোভ করেন। পরে তারা জায়গা পরিবর্তন করে অবস্থান নেন শাহবাগ জাতীয় জাদুঘরের সামনে। হাজারেরও বেশি গ্রাহক এবং পণ্য সরবরাহকারী জড়ো হন শাহবাগ মোড়। এসময় তারা ইভ্যালির সিইও রাসেলের মুক্তি দাবি করেন।

বৃহস্পতিবার বিকালে এক গ্রাহকের দায়ের করা আত্মসাতের মামলায় রাজধানীর মোহাম্মদপুরের স্যার সৈয়দ রোডের বাসা থেকে র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার হন প্রতিষ্ঠানটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক রাসেল এবং তার স্ত্রী ও প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিন।

সেখান থেকে তাদের নেওয়া হয় র‌্যাব সদরদপ্তরে। শুক্রবার র‌্যাব তাদের গুলশান থানায় হস্তান্তর করে। বিকালে গুলশান থানা পুলিশ তাদের আদালতে তুলে তিন দিনের রিমান্ডে নেয়।

ট্যাগ: ইভ্যালি